চকরিয়ায় ৩ হাজার ইয়াবাসহ পাচারকারী আটক

চকরিয়া অফিস:
চট্রগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কের মালুমঘাট হাইওয়ে পুলিশ অভিযান চালিয়ে একটি প্রাইভেটকার থেকে ৩ হাজার ইয়াবাসহ কাজী মোহাম্মদ পলাশ (২৫) নামে এক পাচারকারীকে আটক করেছে। এসময় পুলিশ ইয়াবা পাচারকাজে ব্যবহৃত কারগাড়ীটি জব্দ করে। রবিবার (১৩জানুয়ারী) দুপুর দিকে হাইওয়ে পুলিশ একটি টীম ডুলাহাজারাস্থ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারী পার্কের রাস্তার মাথা এলাকা থেকে এসব ইয়াবা উদ্ধার করেন। আটক পাচারকারী হলেন, শরিয়তপুর জেলার জাজিরা উপজেলার জয়নগর এলাকার কাজী এমদাদ হোসেনের ছেলে। এ ঘটনায় হাইওয়ে পুলিশ বাদী হয়ে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে বিকালে থানায় মামলা দায়ের করে।
হাইওয়ে পুলিশ সূত্রে জানায়, চট্রগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কে রবিবার দুপুরের দিকে নিয়মিত টহলের অংশ বিশেষ মালুমঘাট হাইওয়ে পুলিশের এস আই জসিম উদ্দিনের নেতৃত্বে সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে ডুলাহাজারা এলাকায় দায়িত্ব পালন করেছিল। ওই সময় কক্সবাজার থেকে চট্রগ্রাম অভিমুখী একটি প্রাইভেটকার গাড়ী (ঢাকামেট্রো-গ ১২-৭৩১৫৩) ইয়াবা পাচারের গোপন সংবাদ পাই হাইওয়ে পুলিশ। ইয়াবা পাচারের এ ধরণের সংবাদ পেয়ে হাইওয়ে পুলিশের পুলিশ পরিদর্শক (ওসি) মো: আলমগীর নেতৃত্বে সঙ্গীয় পুলিশ নিয়ে মহাসড়কের ডুলাহাজারাস্থ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারী পার্কের রাস্তার মাথা এলাকায় অবস্থান নেয়।ওই সময় গাড়ীটি পৌঁছলে সিগন্যাল দিয়ে থামানো হয়। পরে পুলিশ গাড়িতে থাকা এক যুবকে তল্লাসী করে ৩ হাজার ইয়াবা উদ্ধার করে। এবং ইয়াবা পাচারে ব্যবহৃত কারগাড়ীটি জব্দ করে পুলিশ ফাঁড়িতে নিয়ে যায়।
এ ব্যাপারে মালুমঘাট হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির পুলিশ পরিদর্শক (ওসি) মো: আলমগীর বলেন, কক্সবাজার মহাসড়কে অভিযানের ভিত্তিতে সাফারী পার্কের গেইট এলাকায় একটি প্রাইভেটকার তল্লাসী করে ৩ হাজার ইয়াবাসহ এক পাচারকারীকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তার ব্যবহৃত কারগাড়ি জব্দ করা হয়। তিনি আরো বলেন, এ নিয়ে হাইওয়ে পুলিশ বাদী হয়ে গ্রেপ্তারকৃত পাচারকারী ব্যাক্তির বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট মাদক আইনে থানায় মামলা দায়ের করা হয় এবং গ্রেপ্তারকৃত আসামীকে থানায় সোপর্দ করা হয় বলে তিনি জানান

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Application to the Ministry of Information for registration.