কুতুবদিয়ায় অস্ত্রসহ জলদস্যু বাহিনীর দুই সদস্য আটক

কুতুবদিয়ায় অস্ত্রসহ জলদস্যু মুকুল বাহিনীর দুই সদস্য আটক
===================================
কুতুবদিয়া প্রতিনিধিঃ
==========
মাদকবিরোধী ও অস্ত্র উদ্ধার অভিযানে জলদস্যু মুকুল বাহিনীর দুই সদস্যকে অস্ত্রসহ আটক করেছে পুলিশ। গত মঙ্গলবার (২৫ সেপ্টেম্বর) গভীর রাতে ওসি মুহাম্মদ দিদারুল ফেরদাউস, এসআই জয়নাল আবেদীন,এসআই রমজান,এএসআই ফকরুল,আনসার মনিরের নেতৃত্বে পুলিশ পোর্স নিয়ে অভিযান চালিয়ে কৈয়ারবিল ইউনিয়নের সমিতি রোডের মাথায় বেড়িবাঁধ এলাকা থেকে ছালামের ছেলে রমিজ (৩৮) কে আটক করে । এ সময় তার স্বীকারোক্তি মতে দেশীয় তৈরী একনলা বন্দুক উদ্ধার করে বলে পুলিশের অপারেশন অফিসার জয়নাল আবেদীন নিশ্চিত করেন। সে কুতুবদিয়া থানায় অস্ত্র,ডাকাতি,অপহরণ,দস্যুতা,হত্যা মামলাসহ ৬ মামলার পলাতক আসামী। একই রাতে পৃথক অভিযান চালিয়ে মুকুল বাহিনীর সদস্য দক্ষিণ ধুরুং ইউনিয়নের নয়া পাড়ার নুর আহমদের ছেলে বাইট্যা জসিম (৩৫) কে লেমশীখালী ইউনিয়নের আনো বাপের পাড়া এলাকায় থেকে পুলিশ অভিযান চালিয়ে একটি বন্দুকসহ তাকে আটক করে। সে অস্ত্র,ডাকাতি, অপহরণ, বোট পুড়ানো মামলাসহ ৬ মামলার পলাতক আসামী। তাদের বিরুদ্ধে কুতুবদিয়া থানায় ডাকাতি প্রস্তুুতি মামলা রুজু হয়েছে বলে থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মুহাম্মদ দিদারুল ফেরদাউস নিশ্চিত করেন। বিগত এক মাসে পুলিশের অভিযানে মুকুল বাহিনীর ১০ সদস্য আটক হয়েছে ।

এদিকে  মুুুকুলের পরিবার  এসব সাজানো নাটক এবং মুকুলের কোন ডাকাত কিংবা জলদুস্য বাহিনী আগেও ছিল না এখনো নেই বলে দাবি করেছেন। মুকুলের কাছে জানতে চাইলে মুকুল বলেন “আমার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করা হচ্ছে আমার এসব বিষয়ে কোন সম্পৃক্ততা নেই। আমাকে মিথ্যা জড়ানো হচ্ছে। তিনি নিজেকে একজন শ্রমিকলীগ নেতা বলেও দাবী করেছেন ।

এলাকাবাসীরা এ প্রতিনিধিকে জানিয়েছেন বছর খানেক আগে মুকুলকে র্যাব  ১৯ অস্ত্রসহ  গ্রেফতার করেছিল। বর্তমানে মুকুলের বিরুদ্ধে অর্ধ ডজন মামলা রয়েছে। মুকুল যদি ডাকাত কিংবা জলদুস্য হয়ে থাকে সুষ্ট তদন্ত পূর্বক তাকে আইনের আওতায় আনার দাবি তাদের ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Application to the Ministry of Information for registration.