জামায়াতের টাকায় সরকারের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রের জাল বুনছেন সিনহা

প্রকাশিত :২০.০৯.২০১৮

নিউজ ডেস্ক: বিদেশে অর্থপাচার, আর্থিক অনিয়ম, দুর্নীতি ও নৈতিক স্খলনসহ ১১টি অভিযোগ রয়েছে সাবেক প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহার বিরুদ্ধে। এজন্য সুপ্রিম কোর্টের পাঁচজন বিচারপতি তার সঙ্গে একই বেঞ্চে বসতে পর্যন্ত চাননি। এবার সেই দুর্নীতিবাজ সিনহা জামায়াতের টাকায় সরকারের বিরুদ্ধে বই লিখেছেন বলে জানা গেছে।

জানা যায়, তার লেখা বইটি গত ১৬ সেপ্টেম্বর অ্যামাজনে উন্মুক্ত করার পর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হলে বইটি প্রকাশের নেপথ্যের সব খোঁজ খবর নিতে শুরু করেছে গোয়েন্দা সংস্থা।

সূত্র বলছে, আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে বর্তমান আওয়ামী লীগের নেতৃত্বাধীন স্বাধীনতার পক্ষের সরকারের বিরুদ্ধে অবশেষে ষড়যন্ত্রের ঝাঁপি খুলে দেয়ার অঙ্গিকার করেছেন সাবেক প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহা (এস কে সিনহা)। সুরেন্দ্র কুমার সিনহার লেখা বইটির নাম- ‘এ ব্রোকেন ড্রিম: রুল অব ল’, হিউম্যান রাইটস এ্যান্ড ডেমোক্রেসি’। বইয়ের শিরোনামটির বাংলা অনুবাদ করলে অর্থ দাঁড়ায়- ‘আইনের শাসন, মানবাধিকার এবং গণতন্ত্রের স্বপ্নভঙ্গ’। সরকারের বিরুদ্ধে ও বাংলাদেশের ভাবমূর্তি প্রশ্নবিদ্ধ করতে বাইটি বাজারে ছেড়ে নতুন করে ষড়যন্ত্র শুরু করেছেন তিনি। বিদেশে অবস্থানরত এসকে সিনহাকে রাজনৈতিক দাবার ঘুঁটি হিসেবে ব্যবহার করছে বিএনপি-জামায়াতের ‘বি টিম’ বলে পরিচিত সম্প্রতি রাজনৈতিক অঙ্গনে উত্থান হওয়া তৃতীয় শক্তি। যেকোন মূল্যে আওয়ামী লীগের সরকারকে উৎখাত করে বিএনপি-জামায়াতকে ক্ষমতায় বসাতে দেশে-বিদেশে তৎপর তৃতীয় শক্তির একজন মুরব্বি নবেল লরিয়েটসহ সুশীল সমাজের তথাকথিত বুদ্ধিজীবীরা। তারা পর্দার অন্তরালে যে অপ-তৎপরতা চালাচ্ছেন তারই নীল নকশার অংশ হলো সিনহার লেখা বই।

গোয়েন্দা সংস্থার সূত্রে জানা গেছে, বিএনপি-জামায়াতের পক্ষের তৃতীয় শক্তির সঙ্গে সাবেক প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহার যোগাযোগ হয় সুদূর আমেরিকায়।  আমেরিকায় অবস্থান করে সাবেক প্রধান বিচারপতি এসকে সিনহার সঙ্গে আগামী নির্বাচনকে সামনে রেখে নানা ধরণের ষড়যন্ত্রের ছক কষছে রাজনৈতিক অঙ্গনে আত্মপ্রকাশ হওয়া সুশীল সমাজের বুদ্ধিজীবী পরিচিত তৃতীয় শক্তি। আগামী নির্বাচনে শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন আওয়ামী লীগ সরকার যাতে ফের ক্ষমতায় আসতে না পারে সেজন্য বিরাট অংকের ডলার ডিল হয়েছে।

সরকারের বিরুদ্ধে বিষোদগার করে বক্তব্য রাখবেন, সরকার বিরোধী অপ্রচারের অংশ হিসাবে তার লেখা একটি বই বাজারে ছেড়েছেন বিদেশের মাটিতে অবস্থানরত এসকে সিনহা। বিদেশের ইলেকট্রনিক ও প্রিন্ট মিডিয়ায় তার বই ও বক্তব্য ভাল করে কভারেজ দেয়ানোর জন্য এই ডলারের ফান্ড ব্যবহৃত হচ্ছে। এতে সহযোগিতা করছে তার ঘনিষ্ঠজন পরিচিত নিকটতম বিচারপতি, খ্যাতনামা আইনজীবী, সুশীল সমাজের কথিত বুদ্ধিজীবীসহ সরকারবিরোধী জোট। তার ঘনিষ্ঠজন বলে পরিচিত বিচারপতিদের মধ্যেও কারও কারও সঙ্গে যোগাযোগ রক্ষা করে চলেছেন এসকে সিনহা। সাবেক প্রধান বিচারপতি এসকে সিনহার সঙ্গে বিচারপতি, আইনজীবী, রাজনীতিক, সুশীল সমাজ ও স্বাধীনতার বিপক্ষের অশুভ শক্তি বলে পরিচিতদের সঙ্গে কানেকশন নিয়ে ষড়যন্ত্রের যে ছক কষা হয়েছে সেই বিষয়ে সরকারের উচ্চ পর্যায়ে প্রতিবেদন দিয়েছে গোয়েন্দা সংস্থা।

বিশ্বস্ত সূত্রে জানা গেছে, আমেরিকার নিউইয়র্কে সাবেক প্রধান বিচারপতি এসকে সিনহার সঙ্গে বৈঠক হয়েছে যুদ্ধাপরাধের অভিযোগে সর্বোচ্চ আদালতের রায়ে ফাঁসিতে ঝুলিয়ে মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করা জামায়াতের কেন্দ্রীয় নেতা মীর কাসেমের ভাই মীর মামুনের সঙ্গে। এসকে সিনহা প্রধান বিচারপতি থাকাকালে তার সঙ্গে লন্ডনে গোপন বৈঠক হয়েছিল যুদ্ধাপরাধী সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর (সাকা চৌধুরী) পরিবারের।  সাকা চৌধুরীকে ফাঁসির হাত থেকে বাঁচানোর জন্য তার পরিবারের সঙ্গে লন্ডনে গোপন বৈঠকটি ফাঁস হয়ে যাওয়ায় সাকা চৌধুরীকে রক্ষা করা সম্ভবপর হয়নি।  সাকা চৌধুরীর পরিবারের সঙ্গে সাবেক প্রধান বিচারপতির গোপন বৈঠক নিয়ে তখন ব্যাপক প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ায় প্রকাশ হওয়ার ব্যাপক তোলপাড় সৃষ্টি হলে ঘটনাটি সর্বোচ্চ আদালতের শুনানিতে পর্যন্ত গড়ায়। এখন আবার আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন আওয়ামী লীগ সরকার যাতে ফের ক্ষমতায় আসতে না পারে সেজন্য যুদ্ধাপরাধী গোষ্ঠীসহ সরকার বিরোধী খ্যাতনামা আইনজীবী, বুদ্ধিজীবী, সুশীল সমাজের ব্যক্তিদের সঙ্গে যোগাযোগ রক্ষা করে ষড়যন্ত্রের জাল বুনছেন এসকে সিনহা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Application to the Ministry of Information for registration.