চকরিয়ায় ফুটন্ত কিশোর ক্লাবের মানববন্ধন পরবর্তী সমাবেশে উপজেলা চেয়ারম্যান অপরাধমুক্ত সুন্দর বাংলাদেশ বিনির্মানে মাদকের বিরুদ্ধে সামাজিক আন্দোলন চালিয়ে যেতে হবে

চকরিয়ায় ফুটন্তকিশোর ক্লাবের মানববন্ধন
পরবর্তীতে সমাবেশে উপজেলা চেয়ারম্যান
অপরাধমুক্ত সুন্দর বাংলাদেশ বিনির্মানে মাদকের
বিরুদ্ধে সামাজিক আন্দোলন চালিয়ে যেতে হবে
বিশেষ প্রতিবেদকঃ
চকরিয়ায় মাদকের বিরুদ্ধে সামাজিকভাবে জনসচেতনতা বাড়াতে ও প্রতিরোধ মূলক মানববন্ধন কর্মসূচী পালন করা হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার বিকালে চট্টগ্রাম -কক্সবাজার মহাসড়কের পৌরশহরের জনতা টাওয়ারের সামনে ফুটন্ত কিশোর ক্লাব নামের একটি সংগঠন মানববন্ধন কর্মসুচি আয়োজন করেন। মানববন্ধনে ক্লাবের সদস্যরা ছাড়াও অংশগ্রহনকারিরা ব্যানার, পোষ্টার , পেষ্টুন প্লেকাড হাতে নিয়ে মাদককে না বলুন, মাদক মুক্ত সমাজ চাইসহ বিভিন্ন শ্লোগান দেয় এবং জনসাধারনের কাছে লিফলেট বিতরন করেন।
চকরিয়া ফুটন্ত ক্লাবের সভাপতি সাখাওয়াত হোসেন আদনানের সভাপতিত্ব ও সাধারণ সম্পাদক মো, হাসান মুরাদের পরিচালনায় মানববন্ধন পরবর্তীতে সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বক্তব্য রাখেন চকরিয়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামীলিগের সভাপতি আলহাজ¦ জাফর আলম। বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন চকরিয়া পৌরসভা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও কক্সবাজার জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান জাহেদুল ইসলাম লিটু, লক্ষ্যারচর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি ও কুমিল্লার মাদকাসক্তি নিরাময় কেন্দ্র” আদর”র চেয়ারম্যান রেজাউল করিম সেলিম।
মানববন্ধনে আরও বক্তব্য রাখেন ক্লাবের উপদেষ্টা আইনজীবি ফাহাদ বিন ফিরোজ সোহান , কৈয়ারবিল ইউনিয়ন যুবলীগের যুগ্ন আহবায়ক মিজানুর রহমান মিজান , মাষ্টার আরাফাত হোসাইন, চকরিয়া পৌরসভা ছাত্রলীগের সহসভাপতি বোরহান উদ্দিন। মানববন্ধনে স্কুল কলেজের শিক্ষক, শিক্ষার্থী ছাড়াও পেশাজীবি, রাজনৈতিকসহ শ্রেণীপেশার মানুষ অংশগ্রহন করেন।
চকরিয়া শহরে ফুটন্ত কিশোর ক্লাবের মানববন্ধনে প্রধান অতিথি চকরিয়া উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ জাফর আলম বলেছেন, মাদক বাংলাদেশের প্রতিটি পরিবারকে গ্রাস করেছে। এমন কোন পরিবার নেই, যেই পরিবারে মাদকসক্ত বা মাদক কারবারে জড়িত মানুষ নেই। এটি আমাদের জন্য বড় ধরণের সামাজিক বিপর্যয়। মাদকের কারনে যেমন সমজে অপরাধ প্রবণতা বাড়ে, তেমনি মাদকাসক্তের কারনে পরিবারে চরম অশান্তি তৈরী হয়।
তিনি বলেছেন, সরকার প্রধান শেখ হাসিনা মাদকের কারনে দেশে সামাজিক অবক্ষয় ও অপরাধ প্রবণতা বাড়ার বিষয়টি আমলে নিয়েছেন। তিনি ঘোষনা দিয়েছেন বাংলাদেশ থেকে যে কোন উপায়ে মাদক নির্মুল করা হবে। সেই আলোকে অপরাধ প্রবণতামুক্ত সুন্দর বাংলদেশ বির্নিমানে মাদকের বিরুদ্ধে সবাইকে যার যার অবস্থান থেকে সামাজিক আন্দোলন জোরদার করতে হবে। এই আন্দোলন সফল না হওয়া পর্যন্ত চালিয়ে যেতে হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Application to the Ministry of Information for registration.