চকরিয়ায় বিমান বন্দর সড়কের বেহাল দশা: যাতায়তে দুর্ভোগ

chakaria pic 24-6-18

চকরিয়া অফিসঃ চকরিয়া পৌরসভার যাতায়তের অন্যতম প্রধান সড়ক পুরাতন বিমান বন্দর সড়কে বৃষ্টি ও ড্রেনের ময়লাযুক্ত হাটু পরিমাণ পানি জমে থাকায় জলাবদ্ধতা সৃষ্টিতে পথচারী ও এলাকাবাসীর যাতায়তে চরম দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে।নিত্যদিন বাধ্য হয়েই ১৫টি শিক্ষা প্রতিষ্টানের অন্তত ৫হাজার শিক্ষার্থীকে দুর্গন্ধ ও ময়লা যুক্ত পানি পাড়িয়ে ওই সড়ক দিয়ে স্কুল, কলেজ ও মাদ্রাসাগামী ছাত্র-ছাত্রীরা পায়ে হেঁটে চলাচল করতে হচ্ছে।এতেই স্কুলগামী ছাত্র-ছাত্রীদের ও সাধারন মানুষের রোগাক্রান্ত হওয়ার সম্ভবনা রয়েছে বলে সচেতনমহল জানায়। সরেজমিন দেখা গেছে,চকরিয়া পৌরসভার প্রধান ও ব্যস্ততম সড়ক হচ্ছে পুরাতন বিমান বন্দর সড়ক।নিয়মিত এ সড়ক দিয়ে পৌর এলাকার প্রায় ২০হাজার জনসাধারণ যাতায়ত করে।পৌরসভার কার্যালয়ে যেতে হলেই এ সড়ক দিয়ে যেতে হয়।সড়কের লাগোয়া রয়েছে জেলার অন্যতম শিক্ষা প্রতিষ্টান চকরিয়া কোরক বিদ্যাপীঠ ও চকরিয়া আবাসিক মহিলা কলেজ।এই দু’শিক্ষা প্রতিষ্টানের সামনে সড়কে জমে রয়েছে হাটু সমপরিমাণ বৃষ্টি ও ড্রেনের ময়লাযুক্ত পানি। পৌরসভার উন্নয়ন প্রকল্পের অধীনে ড্রেন নির্মাণের ধীরগতিতে কাজ করার ফলে দীঘদিন যাবত সড়কে ড্রেনের ময়লাযুক্ত পানি জমে জলাবদ্ধতা থাকায় সড়ক দিয়ে যাতায়তে চরম দুর্ভোগ।এতে ওই এলাকার বিভিন্ন দোকান-পাটও বন্ধ হয়ে গেছে। এছাড়াও জনবহুল চলাচলের একমাত্র এ সড়ক দিয়ে চকরিয়া পৌরশহরে, হাসপাতাল,চকরিয়া সরকারী উচ্চ বিদ্যালয়,চকরিয়া সরকারী বালিকা বিদ্যালয়, চকরিয়া গ্রামার স্কুলসহ বিভিন্ন প্রতিষ্টানে দৈনন্দিন যাতায়াত করে শিক্ষার্থী ও পথচারী রা।দীর্ঘদিন যাবত সড়কের ময়লা পানি তলিয়ে যাওয়ায় চলাচলে অচল অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে। বিশেষ করে ময়লা ও দুর্গন্ধময় পানি পাড়িয়ে মসজিদে গিয়ে নামাজ পড়তে মুসল্লীদের অনেক অসুবিধা হচ্ছে।স্কুল ও মাদ্রাসাগামী ছাত্র-ছাত্রীদের প্রতিদিনই এই ময়লা ও দুর্গন্ধযুক্ত পানি পাড়িয়ে তাদের বাধ্য হয়েই চলাচলা করতে হচ্ছে।এতে অনেক কোমলমতি ছাত্র-ছাত্রীরা পানিবাহিত রোগসহ বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত হচ্ছে।

চকরিয়া কোরক বিদ্যাপীঠে নাসার্রীতে পড়ুয়া ছাত্রের অভিভাবিকা ফরিদা ইয়াছমিন বলেন,প্রতিদিন আমার ছোট বাচ্চাকে নিয়ে বিদ্যাপীঠ স্কুলের সামনে জমিয়ে থাকা ময়লা ও দুর্গন্ধযুক্ত পানি পাড়িয়ে স্কুলে যাতায়তে যাওয়া-আসা করা বড়ই কষ্ট দায়ক।এ ময়লাযুক্ত পানির কারণে বাচ্চা রীতিমত স্কুলেও আসতে চাই না।এ দুর্ভোগ থেকে আমরা দ্রæত সমস্যার সমাধান চাই।
চকরিয়া কোরক বিদ্যাপীঠের প্রধান শিক্ষক নুরুল আখের বলেন, বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্টানে অধ্যায়নরত কোমলমতি নার্সারি থেকে দশম শ্রেণী পর্যন্ত হাজার হাজার ছাত্র-ছাত্রী প্রতিদিন এ সড়ক দিয়ে যাতায়াত করে। শিক্ষার্থীরা দীর্ঘদিন যাবত বিদ্যালয়ের সামনে জমিয়ে থাকা ময়লা ও দুর্গন্ধযুক্ত পানি পাড়িয়ে যাতায়াত করে যাচ্ছে।মূলত নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে পৌরসভার ড্রেনের কাজ শুরু না করার কারণে সড়কে জলাবদ্ধতা সৃষ্টি হয়।এছাড়াও ড্রেনের পানি নিস্কাশনের পথ সম্পুর্নভাবে বন্ধ হওয়ায় সড়কে এখন ময়লা ও দুর্গন্ধযুক্ত পানি জমে জলাবদ্ধতায় শিক্ষার্থী ও পথচারী যাতায়তে চরম দুর্ভোগ।এ নিয়ে পৌর কর্তৃপক্ষকে সাধারণ জনগোষ্ঠী ও কোমলমতি শিক্ষার্থীর দুর্ভোগ লাগব থেকে দ্রæত সমস্যার সমাধান করার জন্য তিনি আহ্বান জানান।
এ ব্যাপারে চকরিয়া পৌরসভার মেয়র আলমগীর চৌধুরীর কাছে জানতে চাইলে তিনি এ প্রতিবেদককে বলেন,সড়ক পানি জমিয়ে জলাবদ্ধতা সৃষ্টির বিষয়ে পৌরসভা থেকে দ্রæত পানি নিস্কাশনের ব্যাপারে উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।আগামী কাল (সোমবার) মধ্যে এ পানি সরিয়ে নেয়া হবে বলে তিনি জানান

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Application to the Ministry of Information for registration.