‘ব্লু হোয়েল’ এর পর আরও এক বিপজ্জনক গেম ইন্টারনেটে

গত বছর ‘ব্লু হোয়েল’ গেম দুনিয়াজুড়ে ঝড় তুলেছিল। আতঙ্কে পড়ে গিয়েছিলেন অভিভাবকেরা। পুলিশ হন্য হয়ে খুঁজছিল এই ডার্ক ওয়েবে এই গেম ছড়ানোর মাস্টারমাইন্ডদের। শেষ পর্যন্ত ব্লু হোয়েলকে আবারও মানুষের দেহ থেকে সমুদ্রে পাঠানো সম্ভব হয়েছিল। সেই মারাত্মক স্মৃতি মস্তিষ্ক থেকে মুছে যেতে না যেতেই আরও এক মারণ খেলা ছড়ানো হচ্ছে ইন্টারনেটে! সেই খেলার নাম ‘ডিওডোরেন্ট চ্যালেঞ্জ’।

আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম সূত্রে জানা গেছে, সম্প্রতি মাথাচাড়া দিয়ে উঠেছে এই মারণ খেলা। সপ্তাহখানেক আগে জেমি প্রেসকট নামের এক নারী ফেসবুকে একটি পোস্ট করেন। ইংল্যান্ডের ব্রিস্টলের বাসিন্দা জেমি সেই পোস্টে তার অসহায়তা ও তীব্র ক্ষোভ উগরে দিয়েছেন। পোস্টের সঙ্গে যুক্ত করেছেন তার দশ বছরের মেয়ের বাহুর ছবি। সেই বাহুতে গভীর ক্ষত। জেমি লিখেছেন, এই ক্ষত সৃষ্টি হয়েছে ‘ডিওডরেন্ট চ্যালেঞ্জ’ নামের এক বিপজ্জনক খেলা খেলতে গিয়ে। তিনি সব অভিভাবকদের সতর্ক করেছেন এই বিপদ থেকে।

ঠিক কী এই ‘ডিওডোরেন্ট চ্যালেঞ্জ’? কে কতক্ষণ নিজের ত্বকে ডিওডোরেন্ট স্প্রে করতে পারে সেটাই হলো এই খেলার বিষয়বস্তু। কিন্তু দীর্ঘ সময় ধরে টানা স্প্রে করার ফলে ত্বকে সৃষ্টি হয় ভয়ানক ক্ষত। এমন ক্ষত, যার পরিপূর্ণ নিরাময়ের জন্য ত্বক পরিবর্তন করে নতুন ত্বক সংযোজন করতে হয়েছে অনেকের ক্ষেত্রে। বেশিরভাগ মানুষই এই বিপদ সম্পর্কে জানে না। আপাতত এশিয়ায় এই খেলা ছড়িয়ে পড়ার কোনো খবর নেই। তবে সকলকেই সতর্ক থাকতে হবে, যাতে এই খেলাটিকে অংকুরেই ধ্বংস করে দেওয়া যায়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Application to the Ministry of Information for registration.