চকরিয়ায় পারিবারিক কলহে গৃহবধুর আত্মহত্যা! পরিবারের দাবী পরিকল্পিত হত্যা

এম.মনছুর আলম,চকরিয়া:
কক্সবাজারের চকরিয়ায় পারিবারিক কলহের জেরে গলায় ফাঁস দিয়ে কুলসুমা জন্নাত রিমা (২২) নামের এক গৃহবধু আত্মহত্যা করেছেন।শনিবার(২৪ফেব্রুয়ারী)ভোর রাতে উপজেলার সাহারবিল ইউনিয়নের ৫নম্বর ওয়ার্ড মাইজঘোনা উত্তর পাড়া এলাকায় এ আত্মহত্যার ঘটনা ঘটে।খবর পেয়ে চকরিয়া থানা পুলিশ লাশ উদ্ধার করেছে।নিহত কুলসুমা জন্নাত রিমা মাইজঘোনা উত্তর পাড়া এলাকার বশির ড্রাইভারের পুত্র শাওনুল কবিরের স্ত্রী ও একই উপজেলার ডেমুশিয়া ইউনিয়নের মুছারপাড়া এলাকার মৃত মহিউদ্দিনের কন্যা।স্বামী ও শ্বশুর-শ্বাশুরীর সাথে পারিবারিক কলহের জের ধরে স্বামীর পরিবারের সঙ্গে রাগ করে তিনি আত্মহত্যা করেছে বলেও স্থানীয় এলাকাবাসীর ধারণা।
সূত্রে জানাগেছে,উপজেলার ডেমুশিয়া ইউনিয়ন মুছারপাড়া এলাকার মৃত মহিউদ্দিনের কন্যা কুলসুমা জন্নাত রিমা’র সাথে একই উপজেলার সাহারবিল ইউনিয়নের মাইজঘোনা উত্তর পাড়া এলাকার মো:বশির ড্রাইভারের পুত্র শাওনুল কবিরের সহিত ইসলামী শরিয়ত মোতাবেক তিন বছর পূর্বে বিবাহ হয়।বিবাহ হওয়ার পর এক বছর পর্যন্ত তারা সুখে সংসার করেন।পরে স্বামী ও শ্বশুর বাড়ির লোক জনের সাথে বেশ কয়েকবার নিহত রিমার কলহ সৃষ্টি হলে মেয়ের পরিবার সদস্যরা তাকে বাপের বাড়িতে নিয়ে যান।কয়েক মাস যেতে না যেতেই স্থানীয় এলাকাবাসী ও মেয়ের পরিবার সদস্যরা নিহতের স্বামী শাওন ও শ্বশুর-শ্বাশুরীর হস্তক্ষেপে পরে তাকে শ্বশুর বাড়িতে নিয়ে যান বলে সূত্রে জানায়।রিমার স্বামী শাওন ব্যাপারে এলাকায় গরু চুরিসহ নানা অপরাধ কর্মকান্ডে জড়িত থাকার অভিযোগ নিয়ে স্ত্রীর সাথে বেশ কয়েকদফা ঝগড়া বিবাদ হয়।শ্বশুর-শ্বাশুরী প্রায় সময় নিহত রিমাকে নির্যাতন করতো বলে দাবী করেছে রিমার পরিবার।
স্থানীয় এলাকাবাসী জানান,শুক্রবার সন্ধ্যার দিকে শাওনের স্ত্রী কুলসুমা জন্নাত রিমা’র সাথে তার শাশুর বাড়িতে স্বামী ও শ্বশুর-শ্বাশুরীর মধ্যে ঝগড়া হয়।কি কারণে ঝগড়া সৃষ্টি হয়েছিল তা জানিনা।শনিবার সকালে রিমা গলায় ওড়না প্যাচিয়ে আত্মহত্যা করে তার লাশ ঝুলন্ত রয়েছে বলে পার্শ্ববর্তী এলাকাবাসী পুলিশকে খবর দেয়।ঘটনাস্থলে পুলিশ পৌছে নিহতের লাশ উদ্ধার করেছেন।
লাশ উদ্ধার করতে যাওয়া চকরিয়া থানার উপপরিদর্শক(এসআই)গাজী মাঈন উদ্দিন জানান,স্থানীয় লোকজনের কাছ থেকে খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে দেখা যায় ঘরের চালার সাথে বাঁধা গলায় ওড়না প্যাঁচানো অবস্থায় ওই নারীর মরদেহ ঝুলছে। পরে মরদেহ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসা হয়।

তিনি আরো বলেন, পাবিারিক কলহের জের ধরে আত্মহত্যার ঘটনা ঘটতে পারে। মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

এ ব্যাপারে চকরিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) বখতিয়ার উদ্দিন চৌধুরীর কাছে জানতে চাইলে তিনি জানান, ঘটনার খবর পেয়ে থানার এসআই গাজী মাঈন উদ্দিন ঘটনাস্থল থেকে লাশ উদ্ধার করে সুরতহাল রিপোর্ট তৈরি করার পর লাশ কক্সবাজার সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে বলে তিনি জানান।

[contact-form][contact-field label=”Name” type=”name” required=”true” /][contact-field label=”Email” type=”email” required=”true” /][contact-field label=”Website” type=”url” /][contact-field label=”Message” type=”textarea” /][/contact-form]

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Application to the Ministry of Information for registration.