চকরিয়া হারবাংয়ে অবৈধ কার্যকলাপে বাধা দেয়ায় মসজিদে ঢুকে সমাজ সর্দারকে কুপিয়ে হত্যার চেষ্টা

চকরিয়া অফিস
চকরিয়ায় অবৈধ কার্যকলাপে বাধা দেয়ায় মসজিদে ঢুকে সমাজ সর্দারকে কুপিয়ে হত্যার চেষ্টা চালিয়েছে একই সমাজে বসবাসকারী বহিরাগত লোকজন। উপজেলার হারবাং ইউনিয়নের পূর্ব কাটতলী ইসলাম পাড়া জামে মসজিদের ভেতরে ২৪মে’২১ইং দিবাগত রাত ৮টার দিকে ঘটেছে এ ঘটনা।
এঘটনায় উত্তর হারবাং সাবানঘাটা গ্রামের মোঃ শামল আলমের পুত্র নেজাম উদ্দিন (৩০) বাদী হয়ে থানায় লিখিত এজাহার দায়ের করেছেন। এতে আসামী করা হয়েছে, হারবাং ইউনিয়নের ৮নং ওয়ার্ডের পূর্ব কাটতলী ইসলাম পাড়া গ্রামের মো: ইউনুছের পুত্র মোঃ জাহেদ (৩২), মো: ইউনুছের পুত্র মোঃ ছাদেক (৩২), জালাল আহমদের পুত্র মোঃ ওসমান (৩৮), রুহুল আমিন (৪০), আব্দুল মালেকের পুত্র ইমাম হোসেন সহ অজ্ঞাত আরো ৫ জনকে।
অভিযোগে জানাগেছে, অভিযুক্তরা উত্তর হারবাং সাবানঘাটা ও পূর্ব কাটতলী ইসলাম পাড়ায় বহিরাগত বসবাসসহ বার্মাইয়া নাগরিকদের আশ্রয় দিয়ে আসছে। তারা এলাকায় সমাজ ও আইনশৃংখলা পরিপন্থি কর্মকান্ড চালিয়ে আসায় স্থানীয় সমাজ সর্দার হিসেবে মৃত লাল মিয়ার পুত্র মোঃ শামশুল আলম তাতে বাধা নিষেধ করেন। তাতে ক্ষিপ্ত হয়ে পূর্ব শত্রুতার আক্রোশে সমাজ সর্দার মোঃ শামশুল আলম তার মুদির দোকানে বেঁচা-বিক্রি শেষে পূর্ব কাটতলী ইসলাম পাড়া জামে মসজিদে এশারের নামাজ আদায় করতে গেলে অভিযুক্তরা পূর্বপরিকল্পিতভাবে মসজিদে ঢুকে দরজা বন্ধ করে দিয়ে মোঃ শামশুল আলম ও তার ভাই ফয়েজ আহমদকে হত্যার চেষ্টায় ধারালো অস্ত্র, দা কিরিছ দিয়ে কুপিয়ে গুরুতর জখম করে। এক পর্যায়ে মসজিদের ফ্লোরে ফেলে দুই হাতে কন্টনালী ও হাত-পা চেপে ধরে প্রাণে হত্যার চেষ্টা চেষ্টা চালায়। পকেটে থাকা ব্যবসায়ীক নগদ ৪৩,৮৫০ টাকা ও সাড়ে ৭ হাজার টাকা মূল্যের বিদেশী টর্চ লাইট ছিনিয়ে নেয়। মসজিদে মুসল্লীদের আগমন বৃদ্ধি ও স্থানীয় লোকজন এগিয়ে গেলে হামলাকারীরা পালিয়ে যায়। পরে আহতদের উদ্ধার করে চকরিয়া সরকারী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
চকরিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) শাকের মো: যুবায়ের বলেন, ঘটনার বিষয়ে লিখিত অভিযোগটি পেয়েছেন। মসজিদের ভেতরে ঢুকে হামলা অত্যন্ত দু:খজনক। এরপরও বিষয়টি তদন্ত সাপেক্ষে আইনগত ব্যবস্থা নিতে হারবাং পুলিশ ফাঁড়িকে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।##
ছবি আছে।
চকরিয়া পৌর এলাকায় রাস্তা নির্মাণের
নামে জমি জবর দখলের পায়ঁতারা
চকরিয়া অফিস
কক্সবাজারের চকরিয়া পৌর এলাকায় অবৈধ প্রভাবে বিস্তার করে রাস্তা নির্মাণের নামে জমি জবর দখল চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে। পৌরসভা ৬নং ওয়ার্ড ভরামুহুরী মৌলভী পাড়া এলাকায় বশির আহমদ গংয়ের বিরুদ্ধে অভিযোগটি করেন ভূক্তভোগি মোঃ শফির পরিবার। অবৈধভাবে জায়গা দখল করতে এ পায়তারা চালানো হয়েছে।
এনিয়ে ভুক্তভোগি মরহুম হাজী গোলাম হোছনের পুত্র মোঃ শফি বাদী হয়ে চকরিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। অভিযোগে জানান, ভরামুহুরীস্থ বাদীর বসতঘরের সামনের জায়গা দখল নিতে একই এলাকার মৃত রব্বত আলীর পূত্র বশির আহমদ, তার ভাই ফরুখ আহমদ, এনামুল হক ও মৃত আবদুল বারির পূত্র মাসুক আহমদ গং অন্যায়ভাবে বসত ভিটার উপর দিয়ে মাটি ভরাট করে। এতে বাঁধা দিলে প্রকাশ্যে প্রাণনাশের হুমকি দেয়।
ভুক্তভোগী শফির ছেলে সাইফুল ইসলাম জানান, ঘটনার বিষয়ে সমাজ সর্দার মাশুক আহমেদকে জানানো হলে তিনি বিচারের আশ্বাস দিয়ে কালক্ষেপণ করেন। চলমান বৃষ্টির সময় পূণরায় মাটি ফেললে তাতে বাধা দেন। দখলকারীদের পক্ষ নিয়ে সমাজ সর্দার মাশুকসহ পক্ষ নিয়ে হুমকি দেয়। এভাবে বছরের পর বছর জুলুম করে অপরাধীদের আস্কারা দিয়ে যাচ্ছেন মাশুক সর্দার।
চকরিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা অভিযোগটি আমলে নিয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে চকরিয়া থানার ওসিকে নির্দেশনা দেন।
চকরিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) শাকের মোঃ যুবায়ের বলেন- ইউএনও মহোদয়ের নির্দেশনা মতো অভিযোগের তদন্তের জন্য একজন পুলিশ অফিসারকে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। তদন্তপূর্বক আইনী ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।##

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Application to the Ministry of Information for registration.