চকরিয়ায় বনভূমি দখল নিয়ে হামলা, একই পরিবারে নারীসহ আহত-১২

চকরিয়া প্রতিনিধিঃ
চকরিয়ায় ভিলিজারের ভোগ দখলীয় জমি জবর দখলে প্রকাশ্যে দিবালোকে হামলা ও চলাচল পথ দখল চেষ্টার ঘটনা ঘটেছে। সন্ত্রাসী হামলায় একই পরিবারের ১২নারী-পুরুষ সদস্য আহত হয়েছে। আহতদের উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। তন্মধ্যে ৪জনকে চমেক ও জেলা সদর হাসপাতালে রেফার করা হয়েছে। উপজেলার ডুলাহাজারা ইউনিয়নের ৮নং ওয়ার্ডের ভিলিজার পাড়াস্থ গর্জনগাছ তলা এলাকায় ৯ নভেম্বর বিকাল ৩টার দিকে ঘটেছে এ ঘটনা।
এ ঘটনায় ভূক্তভোগী পরিবারের ফিরোজ মিয়ার স্ত্রী নুর জাহান বেগম (৪৫) বাদী হয়ে এদিন রাতে থানায় একটি এজাহার দায়ের করেছেন। এতে অভিযুক্ত করা হয়েছে; একই এলাকার নুরুল আমিনের পুত্র সাদ্দাম হোসেন, নুরুল আজিম, বাদশা মিয়া, শের আলীর পুত্র নুরুল আমিন, শাহাব উদ্দিনের পুত্র ছালাহ উদ্দিন, রশিদ আহমদের পুুত্র লেদু মিয়া, শের আলীর পুত্র নুর মোহাম্মদ, লেদু মিয়ার পুত্র রিদুয়ান, আবদুচ্ছালামের পুত্র মনজুর আলম, নুরুল আজিমের পুত্র মওছুদা বেগম, সাদ্দাম হোসেনের স্ত্রী কুলছুমা বেগম, নুরুল আমিনের স্ত্রী গুরা পুতু বেগম, আবদুল মন্নানের বাহারসহ অজ্ঞাতা আরো ৩/৪জন রয়েছে।
পরিকল্পিত এ হামলায় আহত হয়েছেন; ভূক্তভোগী অসহায় পরিবারের ফিরোজ মিয়ার স্ত্রী নুর জাহান বেগম (৪৫),পুত্র নেজাম উদ্দিন (৩০), ছৈয়দ আহমদের পুত্র গিয়াস উদ্দিন (৪০), মৃত ছালাহ উদ্দিনের স্ত্রী শওকত আরা (৪৫), গিয়াস উদ্দিনের স্ত্রী রওশন আারা আক্তার (৩৫), মৃত ছৈয়দ আহমদের পুত্র ফিরোজ আহমদ, মোহাম্মদ আলীর পুত্র রবিউল করিম, মমতাজ আহমদের স্ত্রী রোকেয়া বেগমসহ একই পরিবারের ১২জন আহত হয়েছে। আহতদের উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। আহতদের মধ্যে নেজাম উদ্দিন ও গিয়াস উদ্দিনকে আশঙ্খাজনক অবস্থায় চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার করা হয়েছে, তারা বর্তমানে মৃত্যু শয্যায়। এছাড়া হামলায় আহত শওকত আরা ও রওশন আরাকে কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতালে রেফার করা হয়েছে। ঘটনার সময় হামলাকারীরা ৪৭হাজার ৫শত টাকা মূল্যের ১২আনা ওজনের স্বর্ণের চেইন ও সাড়ে ১৬ হাজার টাকা মূল্যের একটি মোবাইল সেট লুট করে নিয়ে গেছে। বর্তমানেও নানাভাবে হুমকি ধমকি দিয়ে যাচ্ছে।
অভিযোগে জানাগেছে, অভিযুক্তরা দীর্ঘদিন ধরে ভিলিজারী ও বনবিভাগের জমি জবর দখলে নিতে হামলাকার শিকার পরিবারের উপর হুমকি দিয়ে আসছেন। ঘটনারদিন জমি ও চলাচল পথ জবর দখলের চেষ্টা চালালে ঘটনার সূত্রপাত ঘটে।
চকরিয়া থানার ওসি শাকের মোহাম্মদ যুবায়ের বলেন, ঘটনার বিষয়ে একটি এজাহার পেয়েছেন। অভিযোগটি তদন্তের জন্য থানার একজন উপপরিদর্শককে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে। তিনি অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Application to the Ministry of Information for registration.