চকরিয়া পৌরবাসীকে  কাউন্সিলর জিয়াবুল হকের ঈদ শুভেচ্ছা ও স্বাস্থ্য বিধি মেনে আনন্দ উপভোগ করার আহবান

এ.কে.এম রিদওয়ানুল করিম ঃ
করোনা সংক্রামক প্রতিরোধে সরকার ঘোষিত লকডাউনে স্বাস্থ্য বিধি মেনে ঈদুল ফিতরের আনন্দ উপভোগ করার জন্য চকরিয়া পৌরসভার কাউন্সিলর জিয়াবুল হক এক শুভেচ্ছাবানীতে পৌরবাসীর প্রতি আহবান জানিয়েছেন।
 চকরিয়া পৌরবাসীকে পবিত্র ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানিয়েছেন মানবতার ফেরিওয়ালা হিসেবে খ্যাত সাবেক ছাত্রনেতা, গরিব দুঃখী মেহনতী মানুষের প্রিয় ও আস্থাভাজন চকরিয়া পৌরসভার ৬ নং ওয়ার্ডের
জনপ্রিয় কাউন্সিলর তরুণ জননেতা জিয়াবুল হক। তিনি এক শুভেচ্ছা বার্তায় বলেছেন, বিশ্ব মহামারী কোভিড-১৯ করোনা ভাইরাস সংক্রমণের কারণে এবারের ঈদে দেশের প্রতিটি মানুষকে অদৃশ্য এ সংক্রমণ থেকে নিজেকে সুরক্ষা করতে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে হবে, মেনে চলতে হবে সঠিক স্বাস্থ্যবিধি। আমাদের  প্রজন্মের ইতিহাসে এবার এক অন্যরকম ঈদ এসেছে সবার জীবনে। নিজেকে সুরক্ষিত রাখতে এবার ঈদের অন্যান্য বছরের মতো আনুষ্ঠানিকতা যেমন নতুন কাপড় পরে, ঈদ জামাতে কোলাকুলি কিংবা কদমবুচির মতো বিষয় থেকে আমাদের সকলকে এই ঈদে দূরে থাকতে হবে। মনে রাখতে হবে, সংক্রমণ থেকে নিজেকে রক্ষা করতে পারাটাই ঈদ আনন্দ এবং দেশ ও মানুষের প্রতি বড় দায়িত্ব। একই কারণে এবারের ঈদই হচ্ছে আমাদের জীবনের জন্য মানবতা দেখানো ও সচেতন থাকার সর্বোচ্চ পরীক্ষা।
মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, জাতির জনকের সুযোগ্য কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশে করোনা শনাক্ত হওয়ার পর থেকে অক্লান্ত পরিশ্রম করে যাচ্ছেন জাতিকে সংক্রমণ থেকে রক্ষায় এবং সব মানুষের আহার-নিদ্রা নিশ্চিত করার জন্য। ঈদের সময় আমরা নিজেকে সুরক্ষিত রেখে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর প্রচেষ্টাকে সফল করব এবং তার প্রতি কৃতজ্ঞতা জানাবো।
দেশে করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাবে আমরা মানবতার যে শিক্ষা পেয়েছি তাতে প্রতিটি মানুষ আরও পরিশুদ্ধ হয়েছেন, আরও মানবিক হয়ে উঠেছেন, ভবিষ্যতে এটাই আমাদের সুন্দরের পথ দেখাবে।
কোভিড-১৯ করোনা পরিস্থিতির এই দুঃসময়ে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী দৃঢ়ভাবে নেতৃত্ব দিয়ে চলেছেন, তার প্রতি আমরা কৃতজ্ঞ। তার নেতৃত্বে সমাজের অগ্রভাগে থেকে সারাদেশের  চিকিৎসক, স্বাস্থ্যকর্মী, আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্য, সিভিল প্রশাসন, সাংবাদিকরা নিজেদের দায়িত্ব পালনে যেভাবে জনগণের পাশে দাঁড়িয়েছেন তাতে গর্বে বুক ভরে ওঠে। করোনা সংক্রমণ পরিস্থিতিতে জীবিকা হারিয়ে কর্মহীন ও সংকটে পড়া মানুষকে সাহায্য করতে বিভিন্ন সংগঠন ও ব্যক্তিগতভাবে যারা পাশে দাঁড়িয়েছেন তার মনবতার দৃষ্টান্ত হয়ে থাকবে। এরই মধ্যে যারা স্বজন হারিয়েছেন তাদের প্রতি সমবেদনা এবং যারা আক্রান্ত হয়ে চিকিৎসাধীন আছেন তাদের জন্য শুভ কামনা জানাচ্ছি। মহান আল্লাহ কাছে প্রার্থনা, পৃথিবীর এই অসুখ দ্রুত সেরে যাক, আঁধার কেটে নতুন দিন ফিরে আসুক। বর্তমান মহামারী কোভিড-১৯ করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে সচেতনতার বিকল্প নাই। সবাই সচেতন থাকুন সুস্থ থাকুন, ঘরে থাকুন। সরকারের আইন যথাযথ মেনে চলুল۔। ঈদ মানে ধনী গরীব ভেদাভেদ ভুলে সকলেই এক সাথে সামাজিক দুরত্ব বজায় রেখে পবিত্র ঈদ উল ফিতরে মিলেমিশে আনন্দে মেতে ওঠি। ঈদ সবার জীবনে বয়ে আনুক অনাবিল সুখ, শান্তি ও সমৃদ্ধি। মুছে নিয়ে যাক সকল গ্লানি ও দুর্দশা। এ প্রত্যাশায় চকরিয়া পৌরসভার সকল সম্প্রদায়ের জনগণকে জানাচ্ছি পবিত্র ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা ও ঈদ মোবারক।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Application to the Ministry of Information for registration.