মসজিদের ৩৯ লক্ষ টাকা আত্মসাতের অভিযোগ উঠেছে আ.লীগ নেতাও সাবেক কমিটির বিরুদ্ধে

। বিশেষ প্রতিবেদক।
কক্সবাজারের চকরিয়া পৌরসভার দক্ষিণ বাটাখালী বায়তুচ্ছালাম জামে মসজিদের ৩৯ লক্ষ টাকা আত্মসাতের অভিযোগ উঠেছে সাবেক পরিচালনা কমিটির সদস্য ও এক আওয়ামীলীগ নেতার বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় এলাকায় তোলপাড় চলছে। এনিয়ে নতুন এডহক কমিটির উপদেষ্টাসহ ৮সদস্য স্বাক্ষরিত একটি আবেদন দাখিল করা হয়েছে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরাবরে। বিষয়টি আমলে নিয়ে স্বারক নং ২০২ মুলে তদন্তপূর্বক উপজেলা সমবায় কর্মকর্তাকে প্রতিবেদন দেওয়ার জন্য আদেশ দেয়া হয়েছে।
অভিযোগে দাবী করা হয়, ১ জুন ২০১৬ সালে কমিটির সভাপতি নাসির উদ্দিনের নেতৃত্বে ১১সদস্য বিশিষ্ট কমিটি দায়িত্ব গ্রহণ করেন। কিন্তু দুই বছর অতিবাহিত হলেও তারা দায়িত্ব হস্তান্তর না করে নীতিবহির্ভূতভাবে অতিরিক্ত দুই বছর দায়িত্ব পালন করেন। এই দীর্ঘ ৪ বছরে মসজিদের নিজস্ব আয় ৩৯ লক্ষ ২০হাজার টাকা আত্মসাৎ করেছেন তারা। এসব অপকর্মে সহযোগিতা করে আসছেন স্থানীয় আওয়ামীলগ নেতা ফরিদুল ইসলাম।
এ নিয়ে এলাকার লোকজন প্রতিবাদ করলে তাদের উপর হামলা চালানো হয়। এসব থেকে উত্তরণের লক্ষ্যে গত ২১ এপ্রিল ২ জন উপদেষ্টাসহ ১৫ সদস্যের একটি এডহক কমিটি ঘোষণা করা হয়। এডহক কমিটিকে আগের কমিটির যাবতীয় হিসাব-নিকাশ বুঝিয়ে দেয়ার জন্য বলা হলেও তারা এ বিষয়ে কোন ধরনের কর্ণপাত না করে নিজেদের অপকর্ম ঢাকতে পাল্টা একটি নিজেরা কমিটি ঘোষণা করেন। পাল্টাপাল্টি কমিটি ঘোষনাকে কেন্দ্র করে উভয়পক্ষের মাঝে সংঘর্ষের আশ্কংা বিরাজ করছে।
আরো দাবী করা হয়, পুরনো কমিটির সভাপতি-সাধারণ সম্পাদক ফরিদুল ইসলাম নামের একজন আওয়ামীলীগ নেতাকে ব্যবহার করে মসজিদের জমি, পুকুর ও দোকানপাট দখলে রেখেছেন। এ বিষয়ে কেউ প্রতিবাদ করলে তাদের উপর হামলা চালানো হয় বলে কেউ প্রতিবাদ করতে সাহস পায়না।
নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একজন মুসল্লি বলেন, ২হাজার লোকজন অধ্যুসিত এলাকায় এই মসজিদের অবস্থান। কমিটি নিয়ে গোলযোগ থাকায় মসজিদ উন্নয়ন থেকে বঞ্চিত হচ্ছে।
এলাকার মুসল্লীগণ এ ব্যাপারে প্রশাসনের সুষ্টু তদন্তপূর্বক টাকা আত্মসাৎকারীদের দৃষ্টান্তমুলক শাস্তির ব্যবস্থা ও নিয়মিত কমিটি গঠনের ব্যবস্থার দাবী জানিয়েছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Application to the Ministry of Information for registration.