আবুল হাসনাত মন্ত্রী ও সন্তু লারমা, কুজেন্দ্র প্রতিমন্ত্রী পদমর্যাদা পেলেন

ঢাকা: মন্ত্রীর পদমর্যাদা পেলেন ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগের সংসদ সদস্য আবুল হাসানাত আব্দুল্লাহ। পার্বত্য শান্তি চুক্তি বাস্তবায়ন প্রক্রিয়া পরিবীক্ষণ কমিটি পুনর্গঠন করা হয়েছে। মন্ত্রীর পদমর্যাদায় পুনর্গঠিত কমিটির আহবায়ক করা হয়েছে স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয় সংক্রান্ত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি, আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সিনিয়র সদস্য ও বরিশাল জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুল হাসানাত আব্দুল্লাহ এমপিকে।

বৃহস্পতিবার মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে মন্ত্রীপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলমের স্বাক্ষরে এ সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়। একই সাথে প্রতিমন্ত্রীর মর্যাদায় পদাধিকার বলে ওই কমিটির অপর দুই সদস্য হলেন, পার্বত্য জনসংহতি সমিতির চেয়ারম্যান জ্যোতিন্দ্র বোধিপ্রিয় লারমা ওরফে সন্তু লারমা এবং পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক টাস্কফোর্সের সদস্য কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা এমপি।

প্রজ্ঞাপনে বলা হয়, সরকার এই মর্মে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে যে, পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক জাতীয় কমিটি ও পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির মধ্যে সম্পাদিত চুক্তি বাস্তবায়ন প্রক্রিয়া পরিবীক্ষণ করার লক্ষ্যে গঠিত চুক্তি বাস্তবায়ন কমিটির আহবায়ক আবুল হাসানাত আব্দুল্লাহ এমপি এ পদে অধিষ্ঠিত থাকাকালীন মন্ত্রীর পদমর্যাদা, বেতন ভাতা ও আনুষঙ্গিক অন্যান্য সুযোগ সুবিধা পাবেন। এটি অবিলম্বে কার্যকর হবে।

দলীয় সূত্রে জানা গেছে, পার্বত্য শান্তি চুক্তি বাস্তবায়ন প্রক্রিয়া পরিবীক্ষণ কমিটির চেয়ারম্যান ছিলেন সংসদ উপনেতা বেগম সাজেদা চৌধুরী এমপি। তার অসুস্থ্যতার কারণে এবং পার্বত্য শান্তি চুক্তি বাস্তবায়ন কার্যক্রমকে গতিশীল করতে কমিটি পুনর্গঠন করা হয়েছে। রবিবার নবগঠিত পার্বত্য শান্তি চুক্তি বাস্তবায়ন প্রক্রিয়া পরিবীক্ষণ কমিটি সংক্রান্ত একটি প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়। গত ১৮ জানুয়ারি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ওই কমিটি অনুমোদন করেন।

উল্লেখ্য, ১৯৯৭ সালের ২ ডিসেম্বর পার্বত্য জনসংহতি সমিতির সাথে তৎকালীন আওয়ামী লীগ সরকারের সম্পাদিত ‘পার্বত্য শান্তি চুক্তি’ প্রণয়ন কমিটির চেয়ারম্যান ছিলেন জাতীয় সংসদের তৎকালীন চিফ হুইপ আবুল হাসানাত আব্দুল্লাহ এমপি।

বরিশাল-১ আসনের সংসদ সদস্য, সাবেক চিফ হুইপ আবুল হাসানাত আব্দুল্লাহ এমপিকে পূর্ণ মন্ত্রীর মর্যাদায় পার্বত্য শান্তি চুক্তি বাস্তবায়ন প্রক্রিয়া পরিবীক্ষণ কমিটির আহবায়ক করায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে অভিনন্দন জানিয়েছেন জেলা, মহানগর, উপজেলা ও পৌর আওয়ামী লীগ এবং সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ। এছাড়া সোমবার সকালে জেলার বিভিন্নস্থানে মিষ্টি বিতরণ করেছেন দলীয় নেতাকর্মীরা।

পৃথক বিবৃতিতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও আবুল হাসানাত আব্দুল্লাহকে অভিনন্দন জানিয়েছেন জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট তালুকদার মোঃ ইউনুস এমপি, পঙ্কজ নাথ এমপি, জেবুন্নেছা আফরোজ এমপি, কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের সহসাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট বলরাম পোদ্দার, কেন্দ্রীয় যুবলীগের সহসম্পাদক মোঃ মিজানুর রহমান, মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি গোলাম আব্বাস চৌধুরী দুলাল, সাধারণ সম্পাদক একেএম জাহাঙ্গীর, মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সভাপতি শেখ কুতুব উদ্দিন আহমেদ, সাধারণ সম্পাদক মোখলেছুর রহমান, বরিশাল সদর উপজেলা চেয়ারম্যান সাইদুর রহমান রিন্টু, গৌরনদী উপজেলা চেয়ারম্যান সৈয়দা মনিরুন নাহার মেরী, আগৈলঝাড়া উপজেলা চেয়ারম্যান গোলাম মোর্তুজা খান, গৌরনদী পৌর মেয়র হারিছুর রহমান, মুলাদীর পৌর মেয়র শফিকুজ্জামান রুবেল, বাকেরগঞ্জের পৌর মেয়র লোকমান হোসেন ডাকুয়া, উজিরপুরের পৌরমেয়র মোঃ গিয়াস উদ্দিন, জেলার দুইবারের শ্রেষ্ঠ ইউপি চেয়ারম্যান সৈকত গুহ পিকলু, জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি সুমন সেরনিয়াবাত, সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রাজ্জাক, গৌরনদী উপজেলা প্রেস ক্লাবের সভাপতি মোঃ গিয়াস উদ্দিন মিয়া, সহসভাপতি খোকন আহমেদ হীরা প্রমুখ।

অপরদিকে গৌরনদী পৌর যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক আল-আমিন হাওলাদার, উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি জুবায়েরুল ইসলাম সান্টু ভূঁইয়া ও সরকারি গৌরনদী কলেজ ছাত্র সংসদের ভিপি সুমন মাহমুদের উদ্যোগে মিষ্টি বিতরণ করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Application to the Ministry of Information for registration.