ইভটিজিংয়ে বাধা দেয়ায় মাদ্রাসা সুপারের উপর হামলা

ইভটিজিংয়ে বাধা দেয়ায় মাদ্রাসা সুপার শোয়াইবুল ইসলাম এর উপর ইভটিজাররা হামলা চালায়।এসময় তাদের হামলায় কমবেশি আরো ৫ জন আহত হন।আহতদের উদ্ধার করে চকরিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এ ভর্তি করা হয়েছে। শুক্রবার রাত ৯টার দিকে চকরিয়া উপজেলার বি.এম.চর ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ড এর বহদ্দারকাটা পানিরনালে এ হামলার ঘটনা ঘটে।

স্থানীয় লোকজন জানান,,জনাব শোয়াইবুল ইসলাম বি.এম.চর ইউনিয়নের পুরুত্যাখালী আল আমিন হাশেমিয়া সুন্নিয়া দাখিল মাদ্রাসার সুপার হিসেবে দায়িত্বরত আছেন।তিনি শুক্রবার রাত ৯ টার সময় এলাকার মসজিদের পাশে অবস্থান করছিলেন।ওই সময় একই এলাকার বখাটে যুবক মামুন(৩৫),আরিফ(২৬),ইলিয়াস(২২),মোরশেদ (২৬) একই এলাকার এক বিবাহিত নারীকে উত্ত্যক্ত করে।ইভটিজিংয়ের বিষয়টি জনাব শোয়াইবুল ইসলামকে অবহিত করলে তিনি বখাটেদের বাধা দেয়ার চেস্টা করেন।এতে বখাটেরা ক্ষিপ্ত হয়ে দা ও কিরিচ দিয়ে হামলা চালান।এতে মাদ্রাসা সুপার সহ শফিকুল ইসলাম (২৮),আব্দুল মান্নান(২২) এবং দস্তগীর (৩৪) মারাত্মকভাবে আহত হন।পরে তাদের উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এ ভর্তি করা হয়।উক্ত হামলার ঘটনায় বখাটেদের বিরুদ্ধে চকরিয়া থানায় মামলা করা হয়।বর্তমানে আহতরা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি আছেন।তবে জনাব শোয়াইবুল ইসলাম আশন্কাজনক বলে জানা গেছে।এ ঘটনায় এলাকায় চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Application to the Ministry of Information for registration.