চকরিয়া আওয়ামীলীগের আলোচনা সভায় গিয়াস উদ্দিন চৌধুরী ৭ মার্চের ভাষণকে অস্বীকার করা মানে স্বাধীনতাকে অস্বীকার করা

আবদুল মজিদ,চকরিয়া:
৭ মার্চের ভাষণ শুধু বাঙালি জাতি নয়; পৃথিবীর মুক্তিকামী মানুষের কাছে ঐতিহাসিক অনন্য দলিল। বিশ্ব মানচিত্রে যতদিন বাংলাদেশ থাকবে ততদিন বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণ বাঙালি জাতিকে উজ্জীবিত করবে, অনুপ্রেরণা জোগাবে। ৭ মার্চের ভাষণকে অস্বীকার করা মানে স্বাধীনতাকে অস্বীকার করা। এটি শুধু বাংলাদেশ নয়, সারা বিশ্ববাসীর একটি সম্পদ। পরাধীন জাতির মুক্তির একটি ঐতিহাসিক বার্তা। সারাবিশ্বের নির্যাতিত নিপীড়িত মানুষের জেগে ওঠার শক্তিময় বার্তা।
শনিবার ৭ মার্চ সকাল দশটায় ফাঁশিয়াখালী রশিদ আহমদ চৌধুরী উচ্চ বিদ্যালয়ে চকরিয়া উপজেলা আওয়ামীলীগ আয়োজিত সিনিয়র সহ-সভাপতি সরওয়ার আলমের সভাপতিত্বে ও ফাঁশিয়াখালী ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক নুরুল আবছারের সঞ্চালনায় আলোচনা সভায় বক্তারা এসব কথা বলেন। সকালে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে মাল্যদানের মধ্যদিয়ে দিনের কর্মসূচী শুরু করা হয়। ওইসময় রশিদ আহমদ চৌধুরী উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা জাতীয় সংগীত পরিবেশন ও ৭মার্চের ঐতিহাসিক ভাষণ প্রচার করেন। এসময় আওয়ামীলীগ নেতৃবৃন্দ, শিক্ষক ও অভিভাবক উপস্থিত ছিলেন। আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক গিয়াস উদ্দিন চৌধুরী, সহ-সভাপতি এমআর চৌধুরী, মুজিবুল হক রতন, ছৈয়দ আলম কমিশনার, চকরিয়া পৌরসভার মেয়র আলমগীর চৌধুরী, সাংগঠনিক সম্পাদক মিজবাউল হক, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক আবু মুছা, সাবেক ছাত্রনেতা আবছার উদ্দিন মাহমুদ, মঈনুল ইসলাম, ফাঁশিয়াখালী ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি সাহাব উদ্দিন মেম্বার, কামাল হোসেন মেম্বার, এজাহার আহমদ মেম্বার, যুবলীগ নেতা হেলাল উদ্দিন হেলালী, ইউনিয়ন যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক নাঈমুল হক সিকদার, ছাত্রলীগ নেতা শামীম, ছাত্রলীগ সভাপতি সাহাব উদ্দিন, রশিদ আহমদ চৌধুরী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আনোয়ার হোসেন। ##

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Application to the Ministry of Information for registration.