চকরিয়ায় বনবিভাগের অভিযানে ৫টি অবৈধ বসতি উচ্ছেদ

চকরিয়া অফিস:
কক্সবাজার উত্তর বনবিভাগের আওতাধীন ফাঁসিয়াখালী রেঞ্জের অধীনস্থ বনভূমিতে চকরিয়ায় ডুলাহাজারা বনবিটের বনকর্মীরা অভিযান চালিয়ে অবৈধভাবে নির্মিত পাঁচটি বসতি উচ্ছেদ করে এক জায়গা উদ্ধার করা হয়েছে। শনিবার দুপুরের দিকে উপজেলার ডুলাহাজারা ইউনিয়নের ডুমখালী এলাকায় উচ্ছেদ অভিযান চালিয়ে এসব স্থাপনা উচ্ছেদ করে।
বনবিভাগ সূত্রে জানাগেছে, ফাঁসিয়াখালী রেঞ্জের অধীনস্থ ডুলাহাজারা বনবিট এলাকার ২০০৫ ও ২০০৬ সনের সামাজিক বনায়নের ১০হেক্টর জায়গা একটি ভূমিদস্যু চক্র বেশ কিছু অবৈধ বনভুমি দখল করে ঘেরাবেড়া দিয়ে বসত ঘর নির্মাণ করে। বনবিভাগের জায়গায় বসতভিটাসহ স্থাপন করছে এ ধরণের খবর পেয়ে বিভাগীয় বন কর্মকর্তা তৌহিদুল ইসলামের নির্দেশনায় ফাঁসিয়াখালী রেঞ্জ কর্মকর্তা মো: মাজহারুল ইসলামের নেতৃত্বে একদল বনকর্মী ও স্থানীয় ব্যক্তিবর্গ নিয়ে এ অভিযান পরিচালনা করে। এসময় অভিযানে ওই এলাকায় পাঁচটি বসতঘর উচ্ছেদ করে এক একর পরিমাণ বনবিভাগের জায়গা দখলবাজদের কবল থেকে উদ্ধার করা হয়। অভিযানকালে উপস্থিত ছিলেন, ডুলাহাজারা বনবিট কর্মকর্তা মো: ইলিয়াছ, একদল বনকর্মী ও স্থানীয় কলিম উল্লাহ, তৌহিদুল ইসলামসহ এলাকার সুশীল সমাজের ব্যক্তিবর্গ।
অভিযানে নেতৃত্বে দেয়া ফাঁসিয়াখালী রেঞ্জ কর্মকর্তা মো: মাজহারুল ইসলাম বলেন, সরকারি বনবিভাগের জায়গা দখল করে ঘর নির্মাণকালে ডুলাহাজারাস্থ ডুমখালী এলাকায় পাঁচটি বসতি স্থাপনা উচ্ছেদ করে এক একর পরিমাণ জায়গা দখলমুক্ত করা হয়েছে।
তিনি আরও বলেন, বন ভূমিতে অবৈধ জায়গা দখল করে যে সমস্ত লোক বসতি নির্মাণ করবে সে যেই হোক না কেন তা কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না। এ ছাড়া বনভূমি এলাকায় সরেজমিন পরিদর্শন করে পরবর্তীতে অন্যান্য স্থাপনার বিরুদ্ধে আইনগত প্রদক্ষেপ নেওয়া হবে বলেও তিনি জানান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Application to the Ministry of Information for registration.